বিজ্ঞপ্তি
জরুরী ভিত্তিতে সারাদেশে সাংবাদিক নিয়োগ. দেশের জনপ্রিয়  voiceofchandpur.com অনলাইন নিউজ-এ জরুরী ভিত্তিতে বাংলাদেশের প্রতিটি থানায়. একজন থানা প্রতিনিধি ও প্রতি জেলায় একজন জেলা প্রতিনিধি  নিয়োগ দেওয়া হবে। 
সংবাদ শিরোনাম
স্বামীর খোঁজে প্রধানমন্ত্রীকে আবু ত্ব-হার স্ত্রীর চিঠি

স্বামীর খোঁজে প্রধানমন্ত্রীকে আবু ত্ব-হার স্ত্রীর চিঠি

গত চার দিন ধরে নিখোঁজ আলোচিত ইসলামী বক্তা আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনান। সামাজিক যোগাযোগ মাধ্যমে জনপ্রিয় এই বক্তার নিখোঁজের ঘটনায় উদ্বেগ প্রকাশ করছেন নেটিজেনরা।

ছেলের খোঁজ না পেয়ে উৎকণ্ঠায় ও উদ্বিগ্নে দিনরাত পার করছেন মা আজেদা বেগম। স্ত্রী সাবিকুন্নাহার হন্যে হয়ে দ্বারে দ্বারে ঘুরছেন একটু সহযোগিতার আশায়।

এই চারদিনের প্রতিদিনই রাজধানীর বিভিন্ন থানায় গিয়ে ব্যর্থ হয়েছেন। এ পর্যন্ত একটি মামলাও করতে পারেননি তিনি।

অবশেষে উপায় না পেয়ে শেষ ভরসা হিসেবে প্রধানমন্ত্রীর দৃষ্টি আকর্ষণ করলেন তিনি। প্রধানমন্ত্রীকে মা সম্বোধন করে সহায়তা চেয়ে একটি চিঠি লিখেছেন আবু ত্ব-হার স্ত্রী সাবিকুন্নাহার।

প্রধানমন্ত্রী বরাবর সাবিকুন্নাহারের সেই চিঠির একটি অনুলিপি যুগান্তরের হাতে এসেছে।

যেখানে সাবিকুন্নাহার আবেদন করেছেন, ‘আমরা অত্যন্ত উদ্বিগ্ন। কারও সহযোগিতা না পেয়ে আপনার (প্রধানমন্ত্রী) বরাবর শেষ আশ্রয় প্রার্থনা করছি। আপনাকে মা ও আমার অভিভাবক মেনে আমার দু হাত জোড় করে আমার স্বামী নিখোঁজ আবু ত্ব-হা মুহাম্মদ আদনানকে ফিরে পাওয়ার আকুতি জানাচ্ছি।’

আবু ত্বহা কোনো অপরাধ করে থাকলে, তাকে আইনের কাছে সোপর্দ করা হোক বলেও চিঠিতে উল্লেখ করেন স্ত্রী সাবিকুন্নাহার।

চিঠির বিষয়টি সোমবার রাতে মোবাইল ফোনে নিশ্চিত করেছেন আবু ত্ব-হার স্ত্রী সাবিকুন্নাহার।

তিনি বলেন, ‘এখন পর্যন্ত আমার স্বামী এবং তার দুই সঙ্গী ও গাড়িচালকের কোনো খোঁজ পাইনি। এমতাবস্থায় আমার স্বামী আবু ত্বহা মোহাম্মদ আদনান, তার দুই সঙ্গী ও গাড়ি চালকের জীবন রক্ষার্থে প্রধানমন্ত্রীর সহায়তা চেয়ে একটি চিঠি দিয়েছি। চিঠিটি প্রধানমন্ত্রীর কার্যালয়ের গেটে জমা নেওয়া হয়েছে। এখন আল্লাহ যদি মুখ তুলে তাকায়।’

সাবিকুন্নাহার আরো বলেন, ‘প্রধানমন্ত্রীর চিঠির বিষয়টি আমি সেভাবে সাংবাদিকদের জানাতে পারিনি। আমি আজ সারাদিন প্রধানমন্ত্রী কার্যালয়, ডিবি অফিস আর পল্লবী থানায় যেতে যেতে ক্লান্ত। আর পারছি না। রাত সাড়ে আটটা থেকে সাড়ে ১১টা পর্যন্ত পল্লবী থানায় ছিলাম। আজ পল্লবী থানা বিষয়টি অভিযোগ আকারে নিয়েছে। আপনাদের গণমাধ্যমে খবর প্রকাশসহ সোশ্যাল মিডিয়ায় ত্ব-হার সন্ধান চেয়ে জোরালো দাবি ওঠায় পুলিশ বিষয়টি আমলে নিয়েছে। এমন আরো একটি চিঠি স্বরাষ্ট্রমন্ত্রী ও আইজিপি বরাবর দেব। ’

দীর্ঘশ্বাস ফেলে সাবিকুন্নাহার বলেন, ‘এমন স্বাধীন দেশে জ্বলজ্যান্ত চারজন মানুষ নিখোঁজ হয়ে যায়, আইনশৃঙ্খলা বাহিনী সেটা তো রুখতেই পারল না, এমনকি মামলাও নিচ্ছে না। সহায়তাও করছে না। এটা ভাবা যায়? আমার মতো দুর্ভাগ্য যেন আর কোনো স্ত্রীর না হয়।’

প্রসঙ্গত, বৃহস্পতিবার রংপুর থেকে ঢাকায় রওনা হওয়ার পর থেকে আবু ত্ব-হার খোঁজ মিলছে না। একই সঙ্গে তার সঙ্গে থাকা আব্দুল মুহিত, মোহাম্মদ ফিরোজ ও গাড়িচালক আমির উদ্দীন ফয়েজেরও খোঁজ মিলছে না।

খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 voiceofchandpur.com
Desing & Developed BY DHAKATECH.NET