বিজ্ঞপ্তি
জরুরী ভিত্তিতে সারাদেশে সাংবাদিক নিয়োগ. দেশের জনপ্রিয়  voiceofchandpur.com অনলাইন নিউজ-এ জরুরী ভিত্তিতে বাংলাদেশের প্রতিটি থানায়. একজন থানা প্রতিনিধি ও প্রতি জেলায় একজন জেলা প্রতিনিধি  নিয়োগ দেওয়া হবে। 
সংবাদ শিরোনাম
শেখ হাসিনার নেতৃত্বে দেশ উন্নয়নের রোল মডেল—- শফিকুর রহমান এমপি হাইমচরে বঙ্গবন্ধু জাতীয় গোল্ডকাপ ফুটবল টুর্নামেন্টের ফাইনাল অনুষ্ঠিত হাইমচরে জাটকা সংরক্ষণ কার্যক্রম ব্যাস্তবায়নে জনসচেতনতামূলক সভা ফরিদগঞ্জ রস্তুমপুরে মারধরের ঘটনায় গ্রেফতার -৩ ফরিদগঞ্জ সন্তোষপুর উচ্চ বিদ্যালয় কর্মচারি নিয়োগ বানিজ্য এম এ হান্নানের বিরুদ্ধে মিথ্যাচার,প্রতিবাদে ফরিদগঞ্জ উপজেলা বিএনপির বিক্ষোভ হাইমচর উপজেলা সাউন্ড সিস্টেম ব্যবসায়ি সমিতির কমিটি গঠন বঙ্গবন্ধু গোল্ডকাপ অনূর্ধ্ব – ১৭ ফুটবল টুর্নামেন্টের শুভ উদ্বোধন ফরিদগঞ্জে বঙ্গবন্ধু অনুর্ধ্ব-১৭ ফুটবল টুর্নামেন্ট শুভ উদ্ধোধন করবেন সংসদ সদস্য শফিকুর রহমান ফরিদগঞ্জে ১৭ লক্ষ টাকাসহ চোর আটক
তিন বছরেও শুরু হয়নি ফরিদগঞ্জ গাজীপুর মাদ্রাসার চারতলা ভবনের  কাজ

তিন বছরেও শুরু হয়নি ফরিদগঞ্জ গাজীপুর মাদ্রাসার চারতলা ভবনের  কাজ

মামুন হোসাইনঃ

প্রথম ঠিকাদার কাজ করতে আগ্রহী না হওয়ায় এক বছর পুন: টেন্ডারের মাধ্যমে কর্তৃপক্ষ নতুন ঠিকাদার নিয়োগ করলেও সেই ঠিকাদারও গত দুই বছরে কাজ শুরু করেননি। ফলে গত তিন বছরেও ফরিদগঞ্জ উপজেলার গাজীপুর আহম্মদিয়া ফাজিল মাদ্রাসার চারতলা ভবনের কাজ শুরুই হয়নি। অথচ একই টেন্ডারের অন্য ৫টি প্রতিষ্ঠানের ৪তলা ভবনের কাজ ইতিমধ্যেই সম্পন্ন হয়েছে। ফলে শিক্ষার পরিবেশ বিঘ্নিত হচ্ছে ।

জানা গেছে, ফরিদগঞ্জের ৬ টি মাদ্রাসার চারতলা ভবন নিমার্ণে ২০ কোটি টাকা মূল্য নির্ধারণ করে ২০১৮ সালের ১২ সেপ্টেম্বর একনেক সভায় (যার স্বারক নং ৩৭৭০০০১৫৯১৮(১৪৫) অনুমোদিত হয়। এই ৬টি প্রতিষ্ঠান হলো দাখিল মাদ্রাসা,কড়ৈতলী আলিম মাদ্রাসা,মাছুমপুর ফাজিল মাদ্রাসা, মানুরী ফাজিল মাদ্রাসা, চরপেঁায়া আলিম মাদ্রাসা ও গাজীপুর আহম্মদিয়া ফাজিল মাদ্রাসা। ইতিমধ্যেই গাজীপুর আহাম্মদিয়া ফাজিল মাদ্রাসা ছাড়া বাকী পাঁচটি প্রতিষ্ঠানের নিমার্ণ কাজসম্পন্ন হয়েছে।

সূত্রে জানা গেছে, গাজীপুর আহাম্মদিয়া ফাজিল মাদ্রাসা চারতলা ভবন নির্মাণের জন্য ৩ কোটি ৩৩ লক্ষ ৩৩ হাজার ৩৩ টাকা মুল্য নির্ধারণ করে ২০১৯ সালের জানুয়ারী মাসে টেন্ডার হয়। কিন্তু কার্যাদেশ প্রাপ্ত ঠিকাদারী প্রতিষ্ঠান কাজ না করায় পরের বছর ২০২০ সালের ২০ জানুয়ারী পুনরায় টেন্ডার দিলে প্রতিষ্ঠানের কাজ পান ঠিকাদার মোঃ ফারুক খান। কার্যাদেশ পাওয়ার এক বছর পর ২০২১ সালের ফেব্রুয়ারি মাসে ওই ঠিকাদার মাদ্রাসার সামনে লোক দেখানোর জন্য প্রায় ১৫ হাজার ইট এনে স্তুপ করে রাখেন। কিন্তু অদ্যবদি কোন কাজই শুরু করেন নি ঠিকাদার।

প্রতিষ্ঠানের অধ্যক্ষ মাওলানা মোঃ গিয়াস উদ্দিন জানান, প্রথম টেন্ডারে প্রাপ্ত ঠিকাদার কাজ না করার কারণে এক বছর পর ২০২০ সালের ২০ জানুয়ারী দ্বিতীয়বার টেন্ডার হয়। ঠিকাদার মোঃ ফারুক খানকে আমরা প্রতি মাসেই কাজ শুরু করার জন্য বললে তিনি ধরছি, ধরবেন এই মাসেই ধরতেছি এমন করতে করতে ২ বছর চলে গেছে। গতবছর ফেব্রুয়ারি মাসে ইট এনে রাখেন। কিন্তু এখনো কোন কাজ ধরেননি।

ঠিকাদার মোঃ ফারুক খানের সাথে যোগাযোগ করা হলে তিনি জানান, কিছুদিনের মধ্যে ভবনের কাজ শুরু করবো। এর বাইরে আর কিছুই বলতে চাননি তিনি। চাঁদপুরে জেলা শিক্ষা প্রকৌশল বিভাগের উপ প্রকৌশলী শাহাদাত হোসেন জানান, ঠিকাদার ফারুক খানকে আমরা নোটিশ দিয়েছি দ্রুত কাজ শুরু করার জন্য।

খবরটি শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




© All rights reserved © 2018 voiceofchandpur.com
Desing & Developed BY DHAKATECH.NET